দাঙ্গার শঙ্কায় রাজপ্রাসাদ ছাড়ছেন ব্রিটিশ রানী!

0
220

ডেস্ক প্রতিবেদক ::

আগামী মাসে ইউরোপীয় ইউনিয়ন (ইইউ) থেকে যুক্তরাজ্য চূড়ান্তভাবে বিচ্ছিন্ন হয়ে গেলে লন্ডনে দাঙ্গা হতে পারে এমন শঙ্কায় স্নায়ুযুদ্ধকালীন জরুরি অবস্থা পুনরুজ্জীবিত করার পরিকল্পনা করছে ব্রিটিশ সরকার। এই পরিকল্পনা বাস্তবায়ন হলে ব্রিটিশ রানী দ্বিতীয় এলিজাবেথ-সহ পুরো রাজপরিবারকে রাজপ্রাসাদ ‘বাকিংহাম প্যালেস’ থেকে অন্যত্র সরিয়ে নেয়া হতে পারে।

রবিবার ব্রিটিশ দুটি দৈনিকের প্রতিবেদনে এসব তথ্য জানানো হয়েছে। ব্রিটিশ মন্ত্রিসভার অজ্ঞাত একটি সূত্রের বরাত দিয়ে সানডে টাইমস বলছে, স্নায়ু যুদ্ধকালীন সময় থেকেই ব্রিটেনে জরুরি স্থানান্তর পরিকল্পনা বিদ্যমান রয়েছে। এখন ব্রেক্সিট নিয়ে কোনো চুক্তিতে পৌঁছানো না গেলে নাগরিক নৈরাজ্য তৈরি হতে পারে। যে কারণে জরুরি স্থানান্তর পরিকল্পনা পুরুজ্জীবিত করার প্রস্তাব উঠেছে।

দেশটির রক্ষণশীল আরেক দৈনিক দ্য মেইল অন সানডে বলছে, তারাও লন্ডন থেকে ব্রিটিশ রানী দ্বিতীয় এলিজাবেথ-সহ পুরো রাজপরিবারকে নিরাপদ স্থানে সরিয়ে নেয়ার পরিকল্পনার ব্যাপারে জেনেছে।

আগামী ২৯ মার্চের মধ্যে ইউরোপীয় ইউনিয়ন থেকে যুক্তরাজ্যের বেরিয়ে যাওয়ার চুক্তি ব্রেক্সিট কার্যকর হবে। তার আগে পার্লামেন্টের ভোটাভুটিতে ইইউর সঙ্গে চুক্তির লক্ষ্যে সংসদ সদস্যদের সমর্থন পাওয়ার লড়াই চালিয়ে যাচ্ছে ব্রিটিশ সরকার। ইইউর সঙ্গে শেষ পর্যন্ত কোনো ধরনের চুক্তি ছাড়াই বেরিয়ে যেতে হতে পারে ব্রিটেনকে।

তবে যুক্তরাজ্যের বিভিন্ন ব্যবসা পরিচালনা কারী গোষ্ঠীগুলো বলছে, ব্রেক্সিট পরিকল্পনা দীর্ঘ হলে ব্যবসা-বাণিজ্যে ব্যাপক নৈরাজ্য দেখা দিতে পারে। ব্রেক্সিট চুক্তি কার্যকর হলে ইইউ থেকে আমদানি পণ্য নতুন করে কাস্টমসের তল্লাশির মুখে পড়বে। এর ফলে ওষুধ এবং খাদ্য ঘাটতি হতে পারে।

ব্রেক্সিট ইস্যুতে রাজনীতিকদের ঐক্যমতে পৌঁছানোর জন্য গত মাসে ব্রিটিশ রানীর এক আহ্বানকে দেশটির নাগরিকরা নানা আঙ্গিকে ব্যাখ্যা করেছেন।

print

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here