• রবিবার, ০৪ ডিসেম্বর ২০২২, ০৮:৪১ পূর্বাহ্ন
শিরোনামঃ
চীনের সাবেক প্রেসিডেন্ট জেমিনের মৃত্যুতে শোক প্রধানমন্ত্রীর মোবাইলে সরাসরি রেমিট্যান্স পাঠাতে পারবেন প্রবাসীরা ১০ টাকার টিকিট কেটে চোখ দেখালেন প্রধানমন্ত্রী ভাঙ্গায় নারীর সামাজিক ও অর্থনৈতিক উন্নয়ন ভাবনা সেমিনার অনুষ্ঠিত যুক্তরাষ্ট্রে ৩ ফুটবলারকে গুলি করে হত্যা ভাঙ্গায় আরও ৪০টি ভূমিহীন পরিবারের মাঝে ঘর বিতরণ করেছে উপজেলা প্রশাসন জাতিসংঘের মানবাধিকার পরিষদের সদস্য হলো বাংলাদেশ ভাঙ্গা মাদানী নগর কবর স্থান পরিচালনার নতুন কমিটি গঠন অধ্যক্ষ আবু ইউসুফ মৃধা ভাঙ্গায় শ্রেষ্ঠ শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান প্রধান নির্বাচিত নেতাকর্মীদের ওপর হামলা, পুলিশকে দুষছেন বিএনপির আমান

উপজেলা নির্বাচনে না এলে বিএনপি বিচ্ছিন্ন হয়ে পড়বে

Reporter Name / ১১৮৬ Time View
Update : রবিবার, ৩ ফেব্রুয়ারী, ২০১৯

সচিবালয় প্রতিবেদক :

পানি সম্পদ উপমন্ত্রী ও আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক একেএম এনামুল হক শামীম বলেছেন, উপজেলা নির্বাচনে না আসলে বিএনপি জনগণের কাছ থেকে আরো বিচ্ছিন্ন হয়ে পড়বে।

রোববার সচিবালয়ে বাংলাদেশ সেক্রেটারিয়েট রিপোর্টার্স ফোরাম (বিএসআরএফ) সংলাপে তিনি এ কথা বলেন।

এনামুল হক শামীম বলেন, আমরা আশা করি বিএনপি উপজেলা নির্বাচনে অংশ নেবে। তারা জাতীয় নির্বাচনে ভোটের চেয়ে মনোনয়ন বাণিজ্যসহ অন্যান্য বিষয়ে বেশি মনোযোগী ছিল। তাই আসন্ন উপজেলা নির্বাচনে অংশ নেওয়া উচিত। সবার অংশগ্রহণে সুষ্ঠু ও শান্তিপূর্ণ ভোট হবে বলে আশা করছি।

তিনি আরো বলেন, আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক জানিয়েছেন প্রত্যেক উপজেলা থেকে একক অথবা তিনজন প্রার্থীর নাম মনোনয়ন বোর্ডে দেবেন। সেখান থেকে যারা যোগ্য তাদেরকেই মনোনয়ন দেওয়া হবে। বিএনপি উপজেলা নির্বাচনে অংশ না নিলে তারা জনগণের থেকে আরো বিচ্ছিন্ন হয়ে যাবে।

এনামুল হক শামীম বলেন, অসৌজন্যমূলক আচরণ করা বিএনপির স্বভাব। প্রধানমন্ত্রী চা চক্রে অংশ না নেওয়া অসৌজন্যমূলক। ইতিপূর্বে খালেদা জিয়ার ছেলের মৃত্যুর খবর শুনে প্রধানমন্ত্রী সেখানে গিয়েছিলেন, সেখানেও তারা অসৌজন্যতা দেখিয়েছে। আন্দোলনে যারা ব্যর্থ হয়, নির্বাচনে তারা ব্যর্থ হয়। আবারো আন্দোলনের নামে তারা অরাজকতা করলে দেশের মানুষ তাদের প্রত্যাখ্যান করবে।

দ্রুতই তিস্তা চুক্তি বাস্তবায়িত হবে উল্লেখ করে তিনি বলেন, তিস্তা চুক্তির বিষয়টি প্রধানমন্ত্রী থেকে শুরু করে এটা রাজনৈতিক পর্যায়ে আছে। বাংলাদেশের মানুষের স্বার্থ রক্ষা করে এ চুক্তি দ্রুত বাস্তবায়িত হবে।

বর্ষাকে সামনে রেখে নদী ভাঙনের হাত থেকে রক্ষার জন্য ব্যবস্থা করার চেষ্টা চলছে জানিয়ে তিনি বলেন, বর্ষাকে সামনে রেখে নদী ভাঙন রোধে প্রকল্প ও হাওর এলাকায় আমরা পরিদর্শনে যাব। আমরা দ্রুততা, সততার সাথে কাজ করার নির্দেশনা দিয়েছি।

কারো বিরুদ্ধে যদি প্রমাণ আসে, প্রমাণ থাকলে সে যেই পর্যায়ের কর্মকর্তা হোক তার বিরুদ্ধে অবস্থান নেওয়া হবে বলেও উল্লেখ করেন তিনি।

পানি সম্পদ উপমন্ত্রী বলেন, ইতিমধ্যে ছয়টি নদী ভাঙ্গন এলাকা পরিদর্শন করেছি। সেগুলো মনিটরিং করছি। মানবতার সেবা করা আমাদের মূল কাজ। মাঠ পর্যায়ে আমরা যাব।


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published.

আরও সংবাদ