• শনিবার, ১২ জুন ২০২১, ০৬:০৬ অপরাহ্ন

বাঙালি জিতিয়া প্রমাণ করিল তারাই শ্রেষ্ঠ প্রজাতি: নচিকেতা

Reporter Name / ৩৬ Time View
Update : রবিবার, ২ মে, ২০২১

বিনোদন ডেস্ক :: অন‌্য সব বছরের তুলনায় পশ্চিমবঙ্গে এবারের বিধানসভা নির্বাচনের চিত্রটা পুরোপুরি ভিন্ন। রোববার (২ মে) সকাল থেকে চলছে এ নির্বাচনের ভোট গণনা। এই রাজ‌্যে ২৯৪টি আসনের মধ‌্যে এখন পর্যন্ত তৃণমূল কংগ্রেস পেয়েছে ২০৭টি, ভারতের বর্তমান ক্ষমতাসীন দল বিজেপি পেয়েছে ৮৪টি। স্বাভাবিকভাবে তৃতীয়বারের মতো ক্ষমতায় যাচ্ছে মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের তৃণমূল।

পশ্চিমবঙ্গে তৃণমূলের বিজয়কে বাঙালির বিজয় মনে করছেন কলকাতার শ্রোতাপ্রিয় সংগীতশিল্পী নচিকেতা চক্রবর্তী। তাদেরকে কুর্নিশ জানিয়ে নচিকেতা বলেন—আজ বাঙালির জয়ের দিন। বাঙালির আত্মশ্লাঘার দিন। বাঙালি জিতিয়া প্রমাণ করিল, বাঙালি শ্রেষ্ঠ প্রজাতি। কোনো এক মনীষী বলেছিলেন, বাংলা আজ যেটা ভাবে, ভারত সেটা ভাবে পরশু। বাঙালিদের এই অহঙ্কারের জায়গাটা একটা সময় পর্যন্ত ছিল। তবে ইদানীং আমরা যেন নিজেদের বাঙালি ভাবতে লজ্জা পাচ্ছিলাম। এখনো প্রচুর মানুষ আছেন, যারা ইংরেজিতে কথা বলতে ভালোবাসেন। হিন্দিতেও। কিন্তু আজ একটা বিষয় প্রমাণিত হয়ে গেল, যে দলটা প্রায় গোটা ভারতকে মুঠোয় নিয়ে ফেলেছে, বাংলাকে তারা কবজা করতে পারল না। এটা আক্ষরিক অর্থেই আমাদের অর্থাৎ বাঙালিদের জয়।’

বাঙালি সব অর্থেই দূরদর্শী। এটা কিন্তু প্রমাণিত হয়ে গেল। সবাই বলেছিল, এ রাজ্যে বর্তমান সরকার আর টিকবে না। শাসকদলকে পাততাড়ি গুটিয়ে ঘরে ঢুকে যেতে হবে। কিন্তু সেই বাঙালিই জেতাল। এসব কথা উল্লেখ করে এই শিল্পী বলেন, ‘‘আমার এক বন্ধু ভোটপর্বের সূচনাতেই বলেছিল, ‘নবান্নে আবার হাওয়াই চটি।’ সকলে শুনে হেসেছিল হয়তো। আজ কিন্তু সেটাই হয়েছে। আমরা প্রমাণ করে দিয়েছি, আমরা অনেকের থেকে অনেক গুণ এগিয়ে।’’

ভারতের বর্তমান ক্ষমতাসীন দল বিজেপি পুরো ভারতে নিজেদের ঘাটি শক্ত করেছে। পশ্চিমবঙ্গ নিজেদের আয়ত্বে নেওয়ার জন‌্য মোটা অঙ্কের অর্থ খরচ করেছে তারা। বিষয়টি স্মরণ করে নচিকেতা বলেন, হুইল চেয়ারে বসে একজন ভদ্রমহিলা গোটা রাজ্য ঘুরলেন। সাধারণ মানুষের সুখ-দুঃখের পাশে থাকার চেষ্টা করলেন। উন্নয়নের কথা বললেন। আর ভারত কবজা করা একটা দল দিল্লি-বাংলা যাতায়াতেই প্রায় ৩০০ কোটি রুপি খরচ করে ফেলল। গোটা ভোটপর্বের জন্য খরচ শুনেছিলাম প্রায় ২৫ হাজার কোটি রুপি! এই অর্থ দিয়ে বাঙালিকে কেনা যায় না। দু’চারটে গাধা কেনা যায় হয়তো। কারণ, শয়তান তো চিরকালই থাকে। ও সব গুণতিতে আসবে না।


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

More News Of This Category